অন্ধ হয়ে টি-টোয়েন্টিতে ডাবল সেঞ্চুরি!

Image
ফ্রেডরিক বোয়ের। ছবি: ফেসবুক
দক্ষিণ আফ্রিকায় দৃষ্টিহীনদের টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে দ্বি শতক রানের ইনিংস খেলেছেন এক ব্যাটসম্যান ওয়ানডে ক্রিকেটের ইতিহাসে দ্বি শতক আছে সর্বসাকল্যে আটটি। টি-টোয়েন্টিতে নেই। একটু ভুল হলো। দ্বি শতক আছে। তবে সেটি একটু ভিন্ন ধরনের ক্রিকেট প্রতিযোগিতায়। দৃষ্টিশক্তি নেই এমন ক্রিকেটারদের টুর্নামেন্টে দ্বি শতক রানের ইনিংস, ভাবা যায়!
ঘটনাস্থল দক্ষিণ আফ্রিকা। প্রিটোরিয়ায় ব্লাইন্ড ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকা ন্যাশনাল টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে বোল্যান্ডের হয়ে দ্বি শতক রানের ইনিংস খেলেছেন ফ্রেডরিক বোয়ের। কাল রাউন্ড রিপন লিগের শেষ ম্যাচে ফ্রি স্টেটের বিপক্ষে ২০৫ রানের ইনিংস খেলেন বোল্যান্ডের হয়ে খেলা এই ব্যাটসম্যান। কোনোরকম দৃষ্টিশক্তি ছাড়াই মাত্র ৭৮ বলে ইনিংসটি খেলেন বোয়ের। ৩৯টি চার আর ৪ ছক্কায় সাজানো তার এই ইনিংসে স্ট্রাইক রেট ২৬৩। ২০৫ রানের এই ইনিংসে ১৮০ রানই এসেছে বাউন্ডারি থেকে—যা তাঁর মোট রানের ৮৭ শতাংশ।
দুর্দান্ত এই ইনিংসটি খেলার পথে অন সাইড থেকে ১২৮ রান তুলে নেন বোয়ের। এর মধ্যে মিড উইকেট থেকে তুলেছেন ৭৮ রান। বোল্যান্ডের ইনিংসে শেষ বলে আউট হন তিনি। তবে বোয়েরের …

শেখ হাসিনার প্রতি জনগণের আস্থা আছে: তথ্য প্রতিমন্ত্রী

শেখ হাসিনার প্রতি জনগণের আস্থা আছে: তথ্য প্রতিমন্ত্রী
তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেছেন, দেশের জনগণ পরপর দুইবার নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে দেশ সেবার সুযোগ করে দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জনগণের সেবক হয়ে দেশের মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন। শেখ হাসিনার প্রতি দেশের জনগণের আস্থা আছে।
তথ্য প্রতিমন্ত্রী আজ টাঙ্গাইলে উন্নয়নের অভিযাত্রায় অদম্য বাংলাদেশ- এই প্রতিপাদ্যে ৪র্থ উন্নয়ন মেলা উপলক্ষে শোভাযাত্রার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন।
তিনি বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু আমাদের স্বাধীন বাংলাদেশ উপহার দিয়ে গেছেন। তারই কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত ১০বছরে দেশে যে পরিমাণ উন্নয়ন কর্মকাণ্ড করেছেন তা দেখে দেশের জনগণ আগামী সংসদ নির্বাচনে আবারও নৌকায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় আনবে।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান উপভোগ করেন এবং মেলার বিভিন্ন স্টল পরিদর্শন করেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। এসময় ছানোয়ার হোসেন এমপি, মনোয়ারা বেগম এমপি, মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. মো. আলাউদ্দিন, জেলা প্রশাসক খান মো. নুরুল আমিন, পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায়, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জোয়াহেরুল ইসলামসহ গণমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।
টাঙ্গাইল কালেক্টরেট মাঠে অনুষ্ঠিত উন্নয়ন মেলায় জেলার বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের ১০৫টি স্টল অংশ নিচ্ছে।

Popular posts from this blog

নোয়াখালীতে উৎসবমুখর পরিবেশে উন্নয়ন মেলা শুরু

হঠাৎ করেই উপস্থিত দীঘি

অন্ধ হয়ে টি-টোয়েন্টিতে ডাবল সেঞ্চুরি!